রবিবার, ২০ মে ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

মাননীয় সিসিক মেয়র মশার কামরে নগরবাসী দিশেহারা

images

অমিতাভ চক্রবর্ত্তী রনি : মাননীয় সিসিক মেয়র আপনি মেয়র নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে আপনার বিভিন্ন কর্মকান্ডের জন্য প্রশংসিত হয়ে আসছেন। বিভিন্ন ছড়া, নালা, খাল ও সরকারী পতিত জায়গা উদ্ধারের ক্ষেএে আপনার ভূমিকা ছিল চোখে পড়ার মত। রাস্তা প্রসস্থ করনের জন্য  বড় বড় দালান ভাঙ্গার মত সাহসিক উদ্যোগ প্রশংসার দাবিদার। তাছাড়া নানা ধরনের উন্নয়নমূলক কাজ করে যাচ্ছেন। কিন্তু গত কয়েক  বছর ধরে একটা কাজ নগরবাসীকে অতিষ্ঠ করে তুলছে। নগরবাসী আজ বিপর্যস্ত। আপনার প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন ধরনের উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে না। আপনার প্রশাসনের  সবাই যেন নীরবতার ভূমিকা পালন করছে। দেখেও না দেখার ভান করছে। এ দিকে নগরবাসীর করুন অবস্থা। নগরবাসী আজ মশা দ্বারা চরমভাবে আক্রান্ত। মশার উপদ্রব দিন দিন বেড়েই যাচ্ছে। বতর্মানে শহরের এমন কোন জায়গা নেই যেখানে মশাদের তান্ডব নেই। স্কুল, কলেজ  বাসাবাড়ি, অফিস-আদালত, দোকানকোঠা,রাস্তা সব জায়গায় মশা আর মশা। বসে থাকা,  দাড়ানো, টিভি দেখা ও  আরামে শুয়ে থাকার কোন সুযোগ নেই।বিশেষ করে স্কুল ও কলেজের ছাএ-ছাএীদের পড়তে খুব সমস্যা হচ্ছে। মসজিদ, মন্দির এমনকি গির্জায় প্রার্থনা করতে সমস্যা হচ্ছে। শুধু তাই নয় মশার কামরে নগরবাসী বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। অনেকে প্রতিনিয়ত জ্বরে ভুগছে। হাসপাতালগুলোতে মশার উপদ্রবে রোগীতের করুণ অবস্থা। মশারির ভিতরেও আরামে থাকার কোন সুযোগ নেই। অতিরিক্ত মশার কারনে গভীর রাতে শুরু হয় তাদের আক্রমন। এতে করে সবার ঘুম নষ্ট হচ্ছে। আর ঘুমের কারনে অনেকের অফিসে যেতে দেরি হয়।  মানুষ না পারছে কিছু  বলতে না পারছে কিছু সইতে। আর নগরবাসীর এই করুন পরিনতির জন্য সিসিক অনেকাংশে দায়ী। আপনার প্রশাসনের  উদাসীনতার কারনে মানুষকে দুর্ভোগপোহাতে হচ্ছে। মশা নিধনে সিসিকের পক্ষ থেকে গত কয়েক বছরের মধ্যে কোন রকমের কার্যকরী পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি। আগে ২ থেকে ৩ মাস পরপর মশা নিধনে  স্প্রে দেওয়া হত। পাড়া থেকে মহল্লা, বাসাবাড়ি, অফিস- আদালত, স্কুল- কলেজ,ছড়া, নালা,খালের আশ-পাশসহ সব জায়গায় মশার স্প্রের গন্ধ পাওয়া যেত। স্প্রের কারনে কিছুটা হলেও মশার উপদ্রব কম ছিল। মানুষ একটু স্বস্তি পেত। কিন্তু এখন ঐ একটু আরামও মানুষের নেই। মানুষের মাঝে শুধু মশা নিধনের হাহাকার। আপনি যদি মশা নিধনে কার্যকরী পদক্ষেপ না নেন তাহলে কিছুদিন পরে এই শহরে মশার বসবাস হবে নগরবাসীর না। তখন আপনি আর মশারা এই নগরে শান্তিতে বসবাস করবেন । নগরবাসীর শান্তির দরকার নেই।
আর আপনি যদি নগরবাসীর শান্তি চান তাহলে একটা কাজ করতে পারেন ঢাকা উত্তর সিটিকর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র ডেইজি সারওয়ারের  মত। তিনি গত কিছু দিন আগে ঢাকার মশা নিধনে কামান নিয়ে বের হয়েছিলেন। আর আপনি কামান না পারেন বন্ধুক নিয়ে বের হন। তাহলে কিছুটা হলেও মশা কমতে পারে। মাননীয় মেয়র আপনার কাছে বিনীত অনুরোধ নগরবাসীকে এই দুর্দশা থেকে বাঁচান। মশা নিধনে আপনি নগরবাসীর ছোঁয়াব পাবেন প্রচুর। আপনি এখন দালান-কোঠা ভাঙ্গাভাঙ্গি না করে একটু মশা নিধনের স্প্রে সারা শহরে ছড়ানোর চেষ্টা করুন। আমরা নগরবাসী আপনার প্রতি কৃতার্থ হব। প্রাণ ভরে শ্বাস নিতে পারবো। আর আপনাকে মশা নিধনের জন্য ফুল দিয়ে অভিনন্দন জানাবো। আপনার স্বপ্ন হউক এখন দালানকোঠা, রাস্তাঘাট ভাঙা নয়, উন্নয়ন কর্মকান্ড নয়, কিছুদিনের জন্য মশা নিধনই হউক আপনার স্বপ্ন।

সংবাদ শেয়ার করুন

সর্বশেষ সংবাদ

BengalTimesNews.com