বৃহস্পতিবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৩ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ |

এবার ‘ধানের শীষ’ প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করতে চান রিমন

Sylhet rimon photoএবার ‘ধানের শীষ’ প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করতে চান সিলেটের ছালাহ উদ্দিন রিমন। বিগত দুই বার সিটি করপোরেশন নির্বাচনে তিনি মেয়র পদে প্রতিদ্বন্ধিতা করেছিলেন। দুই বার তিনি পরাজিত হয়েছিলেন। সিলেটের যুবদল নেতা ছালাহ উদ্দিন রিমন। এখন তিনি সবার কাছে পরিচিত ব্যক্তি। দুই বার মেয়র পদে নির্বাচন করার কারনে তার পরিচিতি বাড়ায় এবার তিনি ধানের শীষ প্রতীক চান। সেই লক্ষে তিনি চালিয়ে যাচ্ছে লবিং।
রিমন জানিয়েছেন- তিনি যুবদল নেতা হওয়ায় রাজনৈতিক কারনে তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। তিনি বিগত দিনে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার হয়েছেন। পাশাপাশি দুই বার তিনি নির্বাচন করার কারনে পরিচিতিও পেয়েছেন বলে জানান। ছালাহ উদ্দিন রিমনের বাড়ি সিলেট শহরের ২৭ নম্বর ওয়ার্ডের অধীনের হবিনন্দি গঙ্গা নগর এলাকায়।
পেশায় কন্ট্রাক্টর রিমন প্রথমবার সিলেট সিটি নির্বাচন করেছিলেন ২০০৮ সালে। তখন দেশে ওয়ান ইলেভেনের সরকার ক্ষমতায়। রাজনীতিবিদদের ওই দুর্দিনে ছালাহ উদ্দিন রিমন সাহস করে মেয়র পদে প্রার্থী হয়ে সাড়া ফেলেছিলেন। তাকে নিয়ে ব্যপক তোলপাড় শুরু হয়। ওই নির্বাচনে খুব কম সংখ্যক ভোট পেলেও ২০১৩ সালের নির্বাচনে তিনি ফের মেয়র পদে নির্বাচনে প্রার্থী হন। ওই নির্বাচনে রিমন বিএনপির সমর্থন আদায়ের চেষ্ঠা করলেও পাননি। অবশেষে স্বতন্ত্র হিসেবে প্রার্থী হয়ে তিনি পরাজয় বরন করেন।
ছালাহ উদ্দিন রিমন জানিয়েছেন- তিনি দক্ষিন সুরমা ছাত্রদলের সহ-প্রচার সম্পাদক সহ বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। পরবর্তীতে তিনি যুবদলের রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন। বর্তমানে রিমন সিলেট জেলা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক পদ প্রত্যাশী। পাশাপাশি তিনি সিলেট চেম্বার অব কমার্সের সদস্য। রিমন জানান- সরকার বিরোধী আন্দোলন করতে গিয়ে আমি পরপর ৬ মামলার আসামি হয়েছি। এর মধ্য দুটি মামলা হচ্ছে ইলিয়াস আলীর জমানায়। শুরু মাত্র রাজনীতি করার কারনে তিনি এসব মামলায় আসামি হয়েছেন। ফেরারী অবস্থায় দিন যাপন করেছেন। তিনি বলেন- আমার সঙ্গে স্থানীয়ভাবে বিএনপির একাংশ রয়েছে। সুতরাং ধানের শীষ প্রতীক পাওয়ার জন্য তিনি কেন্দ্রের কাছে জোর লবিং চালিয়ে যাচ্ছেন। রিমন রাজনীতি করেন সিলেটে। বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী গয়েশ^র চন্দ্র রায় তার নেতা। ইতিমধ্যে তিনি নির্বাচন করার জন্য দাদার কাছে প্রস্তাব দিয়েছেন। পাশাপাশি কেন্দ্রিয় নেতাদের কাছে লবিং চালাচ্ছেন। ধানে শীষ পেলে এবার নির্বাচন করবেন বলে জানান রিমন। আর দলীয় প্রতীক না পেলে পরবর্তীতে সিদ্বান্ত নেবেন বলে জানান।
রিমনের বাড়ি সিলেটের দক্ষিন সুরমায়। ওই এলাকায় বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের স্ত্রী জোবায়দা রহমানের বাড়ি। জোবায়দা রহমানকে সিলেটের রাজনীতিতে অভিষিক্ত করতে কয়েক বছর ধরে প্রচারনায় রয়েছেন রিমন। তিনি ইতিমধ্যে সিলেট নগরীর বিভিন্ন স্থানে পোস্টারিং করেছেন। ঢাকায় কেন্দ্রিয় কার্যালয়ে তিনি জোবায়দা রহমানের নামে পোস্টারিং ও ব্যানার টানিয়েছেন। এতে করে ঢাকায়ও নজর কেড়েছেন রিমন। রিমন জানান- ‘সিদ্বান্ত নিয়েছিলাম এবার আর নির্বাচন করবো না। যেহেতু দলীয় প্রতীকে নির্বাচন এ কারনে আমি মার্কা হিসেবে দলীয় প্রতীকই চাইবো। আশা করি বিএনপি আমাকে হতাশ করবে না।’

সর্বশেষ সংবাদ